রাসেল গ্রেপ্তারের এক বছর, ইভ্যালিতে জমা হয়েছে অডিট রিপোর্ট

আলোচিত ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালি।
আলোচিত ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালি।

আলোচিত ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা ও সাবেক প্রধান নির্বাহী মোহাম্মদ রাসেল গ্রেপ্তার হওয়ার এক বছরেরও বেশি সময় পার হয়েছে। এতদিনেও ভুক্তভোগীদের জন্য কোনো ইতিবাচক খবর না থাকলেও প্রতিষ্ঠানটি নিয়ে নিজেদের নিরীক্ষা প্রতিবেদন বা অডিট রিপোর্ট ইভ্যালির বর্তমান পরিচালনা পর্ষদের কাছে জমা দিয়েছে অডিট করা প্রতিষ্ঠান।

সংক্ষেপে

* এক বছরেরও বেশি সময় ধরে গ্রেপ্তার রয়েছেন মোহাম্মদ রাসেল।

* ইভ্যালির বর্তমান পরিচালনা পর্ষদের কাছে অডিট রিপোর্ট জমা দিয়েছে অডিটকারী প্রতিষ্ঠান।

* অডিট রিপোর্ট আদালতে দাখিল করবে পর্ষদ।

প্রতারণা ও অর্থ পাচারের অভিযোগে ২০২১ সালের ১৬ সেপ্টেম্বর ইভ্যালির দুই প্রতিষ্ঠাতা মোহাম্মদ রাসেল ও শামীমা নাসরিনকে গ্রেপ্তার করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। ছয় মাস ২০ দিন কারা হেফাজতে থাকার পর চলতি বছরের ৬ এপ্রিল জামিনে মুক্ত হন ইভ্যালির সাবেক চেয়ারম্যান ও রাসেলের স্ত্রী শামীমা নাসরিন। তবে একাধিক মামলায় জামিন হলেও আরও বেশ কয়েকটি মামলায় গ্রেপ্তার দেখানোর কারণে এখনো কারা হেফাজতেই আছেন মোহাম্মদ রাসেল। সেই হিসাবে এক বছর ৩ দিন ধরে গ্রেপ্তার আছেন তিনি।

এদিকে ইভ্যালির পরিচালনায় মহামান্য উচ্চ আদালতের নির্দেশে গঠিত পরিচালনা পর্ষদ দেখভাল করছে প্রতিষ্ঠানটিকে। ইভ্যালির কাছে মার্চেন্ট তথা ব্যবসায়ী এবং গ্রাহকদের কী পরিমাণ দেনা রয়েছে সেটি জানতে অডিট করার সিদ্ধান্ত নেয় এই পর্ষদ। ২৭ লাখ টাকায় চলতি বছরের শুরুর দিকে হুদা ভাসি চৌধুরী অ্যান্ড কোম্পানিকে নিরীক্ষাকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে নিয়োগ দেয় এই পরিচালনা পর্ষদ। অডিট রিপোর্ট জমা দেওয়ার তারিখ কয়েক দফা বাড়িয়ে অবশেষে প্রতিষ্ঠানটির পর্ষদের কাছে অডিট রিপোর্ট জমা দিয়েছে হুদা ভাসি।

এ সম্পর্কিত খবর

No stories found.
kalbela.com