গ্রাহকদের কম মূল্যে সেবা দিতে একসঙ্গে আসছে নেটফ্লিক্স এবং মাইক্রোসফট

গ্রাহকদের কম মূল্যে সেবা দিতে একসঙ্গে আসছে নেটফ্লিক্স এবং মাইক্রোসফট
প্রতীকী ছবি

একসঙ্গে নতুন কিছু অফার নিয়ে আসছে নেটফ্লিক্স এবং মাইক্রোসফট। তারা বেশ সুলভ একটা সাবস্ক্রিপশন আনতে যাচ্ছে, যাতে বিজ্ঞাপন অন্তর্ভূক্ত রয়েছে।

স্ট্রিমিং জায়ান্ট নেটফ্লিক্স বলছে, এটি তাদের একটি নতুন সার্ভিস, যা পুরোনো সার্ভিসগুলোর পাশাপাশি তারা কাস্টমারদের জন্য নিয়ে এসেছে। নেটফ্লিক্সের অন্য সার্ভিসগুলোতে সাধারণত বিজ্ঞাপন থাকে না, আর তাই এটা বিশ্বব্যাপী বেশ জনপ্রিয়।

তবে, নতুন এই সার্ভিসের জন্য নেটফ্লিক্স মাসিক কত টাকা চার্জ করবে, তার বিস্তারিত কিছু জানায়নি কোম্পানিটি।

এমন সময় এই সার্ভিসটি চালু করছে নেটফ্লিক্স, যখন এটি ক্রমাগত সাবস্ক্রাইবার হারাচ্ছে এবং কোম্পানিটি থেকে কয়েকশ কর্মী তাদের চাকরি হারিয়েছে।

নেটফ্লিক্স চলতি বছরের জানুয়ারি-মার্চের ভেতর প্রায় ২ লাখ সাবস্ক্রাইবার হারিয়েছে। এটি এপ্রিল-জুন মাসে আরও প্রায় ২০ লাখ সাবস্ক্রাইবার হারাবে, এমনটাই আশঙ্কা করছে নেটফ্লিক্স।

মাইক্রোসফটের সঙ্গে কাজ করা প্রসঙ্গে নেটফ্লিক্স জানিয়েছে, তারা মাইক্রোসফটকে তাদের গ্লোবাল অ্যাডভারটাইজিং টেকনোলোজি এবং সেলস পার্টনার হিসেবে মনোনীত করে একটি কম মূল্যের বিজ্ঞাপন সম্বলিত সাবস্ক্রিপশন প্ল্যান করছে।

এক বিবৃতিতে নেটফ্লিক্সের চিফ অপারেটিং অফিসার গ্রেগ পিটার্স বলেছেন, ‘নেটফ্লিক্সের জন্য এটা এখনো শুরুর দিকের সময় এবং আমাদের আরও অনেক দূর যেতে হবে। তবে আমাদের লক্ষ্য খুবই পরিষ্কার, আমরা আমাদের গ্রাহকদের জন্য অনেক ধরণের কন্টেন্ট রাখতে চাই, যা হবে প্রিমিয়াম এবং বিজ্ঞাপনী সংস্থাগুলোর জন্য হবে টিভির চেয়ে ভালো প্ল্যাটফর্ম।’

প্রসঙ্গত, নেটফ্লিক্সে এর আগে কখনোই বিজ্ঞাপন ছিল না। এর মডেলটাই গড়ে উঠেছিল বিজ্ঞাপন ছাড়া দর্শকদের প্রিমিয়াম কন্টেন্ট দেওয়ার চিন্তাভাবনা মাথায় রেখে। তবে এবার নেটফ্লিক্স তাদের নিজস্ব নিয়ম ভেঙেই বিজ্ঞাপনের দিকে ঝুঁকেছে।

কারণ, কিছুদিন ধরেই নেটফ্লিক্স সাবস্ক্রাইবার হারাচ্ছে। এর কারণ হিসেবে ধরা হচ্ছে, জীবনযাত্রার ব্যয় বৃদ্ধিকে। সবকিছুর দাম বৃদ্ধি পাওয়ায়, অনেকেই অনেক দিক থেকে খরচ কমানোর চেষ্টা করছে, নেটফ্লিক্সের প্রিমিয়াম সাবস্ক্রিপশনকে এক্ষেত্রে একটু বেশিই ব্যয়বহুল বলে মনে করছেন অনেকে। এছাড়াও নেটফ্লিক্সের সঙ্গে পাল্লা দেওয়ার জন্য বাজারে আছে অ্যামাজন প্রাইম, এইচবিও ম্যাক্স, অ্যাপল টিভি এবং ডিজনি প্লাসের মতো প্রতিযোগী।

তাই, বাজারে টিকে থাকার জন্য নেটফ্লিক্সও এবার একটু কম টাকায়, বিজ্ঞাপন অন্তর্ভূক্ত করে নতুন একটি সাবস্ক্রিপশন প্ল্যান তৈরি করেছে যা চলতি বছরের শেষের দিকেই ঘোষণা করা হবে। এমন একটি মডেল আছে স্পুটিফাইতেও, যেখানে গান ফ্রিতে শোনা যাবে, যদি গ্রাহক বিজ্ঞাপনের জন্য বিরক্ত না হয়।

এদিকে, ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল জানিয়েছে, নেটফ্লিক্স বড় বড় এন্টারটেইনমেন্ট ফার্মগুলোর সঙ্গে তাদের চুক্তি পরিবর্তন করে, তাতে বিজ্ঞাপন প্রদর্শন করার চেষ্টা চালাচ্ছে। কোম্পানিটি ইতোমধ্যে ওয়ার্নার ব্রোস, ইউনিভার্সাল এবং সনি পিকচার্সের সঙ্গে কথা বলেছে।

এ প্রসঙ্গে তাদের সঙ্গে বিবিসি যোগাযোগ করলে ওয়ার্নার ব্রোস কোনো মন্তব্য করতে অস্বীকার করেছে, অন্যরাও তাৎক্ষণিক কোনো জবাব দেয়নি।

নেটফ্লিক্স, করোনা মহামারিতে লকডাউন শুরুর পর থেকে কয়েক মিলিয়ন নতুন সাবস্ক্রাইবার পেয়েছিল। কিন্তু শুধুমাত্র রাশিয়াতে কার্যক্রম বন্ধের কারণে তারা হারিয়েছে প্রায় ৭ লাখ সাবস্ক্রাইবার।

চলতি বছরের জুনে নেটফ্লিক্সের কো-ফাউন্ডার টেড সারানডোস জানান, তারা কয়েকটি কোম্পানির সঙ্গে কথা বলেছেন যাতে যারা কম টাকায় নেটফ্লিক্স চালাতে চায় তাদের জন্য কোনো অফার আনতে পারে কোম্পানিটি।

কান চলচ্চিত্র উৎসবে এক কনফারেন্সে টেড বলেন, ‘আমরা নেটফ্লিক্সে বিজ্ঞাপন আনছি না, আমরা শুধু তাদের সাবস্ক্রিপশনে বিজ্ঞাপন যুক্ত করবো, যারা কম টাকায় নেটফ্লিক্স চালাবে এবং বিজ্ঞাপন দেখতে তাদের কোনো সমস্যা নেই।’

এ সম্পর্কিত খবর

No stories found.
kalbela.com