পেরুতে ৩০০০ বছর পুরোনো গিরিপথ আবিষ্কার

শ্যাভিন দে হুয়ান্টার মন্দিরের গিরিপথ।
শ্যাভিন দে হুয়ান্টার মন্দিরের গিরিপথ।ছবি: সংগৃহীত

পেরুর আন্দেজ পর্বতমালায় ৩ হাজার বছর পুরোনো মন্দিরের নিচে পথের সন্ধান পেয়েছে প্রত্নতাত্ত্বিকরা। মঙ্গলবার (৩১ মে) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানায় মার্কিন সংবাদ সংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়, উত্তর-মধ্য আন্দিজে অবস্থিত শ্যাভিন দে হুয়ান্টার মন্দিরটি একসময় সমগ্র অঞ্চলের মানুষের জন্য একটি ধর্মীয় ও প্রশাসনিক কেন্দ্র ছিল। এই মন্দিরটি সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে ৩ হাজার ২০০ মিটার উপরে অবস্থিত। এটি খননের সময় অন্তত ৩৫টি ভূগর্ভস্থ গিরিপথ পাওয়া গেছে। সবগুলো পথ একে অপরের সাথে সংযুক্ত রয়েছে। এগুলো ১২০০ থেকে ২০০ খ্রিস্টাপূর্বের মধ্যে নির্মিত হয়েছিল।

যুক্তরাষ্ট্রের স্ট্যানফোর্ড ইউনিভার্সিটির প্রত্নতাত্ত্বিক জন রিকের মতে, মে মাসের শুরুর দিকে এই গিরিপথগুলো পাওয়া গেছে। এই পথগুলো মন্দিরের গোলকধাঁধা গ্যালারির আগে নির্মিত বলে মনে করেন তিনি।

তিনি বলেন, ‘এই গিরিপথগুলো সাধারণ গিরিপথ থেকে অনেক আলাদা। এটি ভিন্নভাবে নির্মাণ করা হয়েছে। এই গিরিপথে প্রাচীনকালের বৈশিষ্ট্য কিছু রয়েছে যা আমরা আগে দেখিনি।’

উল্লেখ্য, ১৯৮৫ সালে শ্যাভিন দে হুয়ান্টার মন্দিরকে বিশ্বের ঐতিহ্যবাহী স্থান হিসাবে ঘোষণা করা হয়।

এ সম্পর্কিত খবর

No stories found.
kalbela.com