যুক্তরাষ্ট্র তাইওয়ানকে ছেড়ে যাবে না : পেলোসি

যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি
যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসিসংগৃহীত

চীনের লাগাতার ‍হুমকি ও সমালোচনার মধ্যেই মঙ্গলবার (২ আগস্ট) রাতে তাইওয়ানে পা রেখেছেন যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি। বুধবার (৩ আগস্ট) অঞ্চলটির প্রেসিডেন্ট সাই ইং ওয়েনের সঙ্গে দেখা করেন তিনি।

সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান জানিয়েছে, সাক্ষাতের সময় পেলোসি তাইওয়ানের প্রেসিডেন্টকে বলেন, ‘আমাদের প্রতিনিধি দল তাইওয়ানে এসেছে, কারণ আমরা স্পষ্ট করে দিতে চাই যে আমরা তাইওয়ানকে ছেড়ে যাবো না।’

ন্যান্সি পেলোসি ও তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট সাই ইং ওয়েন
ন্যান্সি পেলোসি ও তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট সাই ইং ওয়েন

তাইওয়ানের প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের সমর্থন অতীতের যেকোনো সময়ের চেয়ে এখন ‘বেশি গুরুত্বপূর্ণ’ উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘বিশ্বের প্রতিটি অঞ্চলের গণতন্ত্রকে রক্ষা করতে যুক্তরাষ্ট্র অতীতের ন্যায় সবসময়ই দৃঢ় প্রতিজ্ঞ থাকবে।’

প্রেসিডেন্ট সাই ইং ওয়েনের প্রশংসা করে পেলোসি আরও বলেন, ‘সীমাহীন চাপ ও কঠিন চ্যালেঞ্জের মধ্য দিয়েও (তাইওয়ান) আপনার নেতৃত্বে একটি সমৃদ্ধ গণতন্ত্র ধরে রেখেছে।’ এ ধারা সামনের দিনগুলোতেও অব্যাহত থাকবে বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি।

পেলোসির এই বিতর্কিত সফরকে ঘিরে অঞ্চলটিতে উত্তেজনা বৃদ্ধি পেয়েছে। তাইওয়ান সীমান্তের কাছে ভারি সামরিক অস্ত্রশস্ত্র মোতায়েন করেছে চীন। এ ছাড়া পেলোসি তাইপের যে গ্র্যান্ড হায়াত হোটেলে উঠেছেন, সেটির বাইরে চীনপন্থীরা সফরের বিরোধিতা করে বিক্ষোভ করছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের তৃতীয় গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি পেলোসির সফরকে ঘিরে তাইওয়ান প্রণালিতে বেইজিং ও ওয়াশিংটনের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। সেখানে দুই দেশই যুদ্ধজাহাজ মোতায়েন করেছে। এ ছাড়া তাইওয়ানের জলসীমার কাছাকাছি অঞ্চল দিয়ে একাধিক চীনা যুদ্ধবিমান উড়ে গেছে বলে জানা গেছে।

এ সম্পর্কিত খবর

No stories found.
kalbela.com