জাওয়াহিরি কাবুলে বাস করছিলেন, জানত না তালেবান!

কাবুলের এই বাড়িটির বেলকুনিতে ফজরের নামাজ শেষে হাঁটার সময় ড্রোন হামলায় নিহত হন আল কায়েদা প্রধান আয়মান আল জাওয়াহিরি
কাবুলের এই বাড়িটির বেলকুনিতে ফজরের নামাজ শেষে হাঁটার সময় ড্রোন হামলায় নিহত হন আল কায়েদা প্রধান আয়মান আল জাওয়াহিরি

আন্তর্জাতিক জঙ্গি সংগঠন আল-কায়েদা প্রধান আয়মান আল-জাওয়াহিরি আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলে বসবাস করছিলেন, তা জানত না দেশটির ক্ষমতাসীন সরকার তালেবান। এক বিবৃতিতে তালেবান এই দাবি করেছে বলে জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংবাদমাধ্যম সিএনএন।

বৃহস্পতিবার (৪ আগস্ট) প্রকাশিত ওই বিবৃতিতে বলা হয়েছে, আল-কায়েদা নেতা আয়মান আল-জাওয়াহিরি কবে আফগানিস্তানে প্রবেশ করেছেন এবং কাবুলে বসবাস করছিলেন সে সম্পর্কে ইসলামিক আমিরাত (তালেবান শাসনাধীন আফগানিস্তান) কিছু জানে না।

বিবৃতিতে তালেবান আরও জানিয়েছে, এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্তে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও গোয়েন্দা সংস্থাগুলোকে নির্দেশ দিয়েছে ইসলামিক আমিরাত আফগানিস্তান। সব দৃষ্টিকোন থেকে এই হামলার বিষয়ে তদন্ত করবে তারা।

মার্কিন ড্রোন হামলায় নিহত হওয়া আল-কায়েদার শীর্ষ নেতা আয়মান আল জাওয়াহিরি
মার্কিন ড্রোন হামলায় নিহত হওয়া আল-কায়েদার শীর্ষ নেতা আয়মান আল জাওয়াহিরি

এর আগে গত ১ আগস্ট সংবাদ সম্মেলনে জাওয়াহিরির মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তিনি জানান, রাজধানী কাবুলের একটি বাসবভনে ড্রোন হামালা চালিয়ে এই জঙ্গি নেতাকে হত্যা করা হয়েছে।

সিএনএনকে মার্কিন প্রশাসনের একজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, তালেবান ঘনিষ্ঠ হাক্কানি নেটওয়ার্কের জ্যেষ্ঠ নেতারা ওই বাড়িটিতে আল কায়েদা প্রধানের উপস্থিতি সম্পর্কে অবগত ছিলেন।

তিনি আরও দাবি করেন, হামলার পর ওই বাড়িতে জাওয়াহিরির উপস্থিতির কথা গোপন করার চেষ্টা করা হয় এবং সেখানে থাকা জাওয়াহিরির পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের অন্যত্র সড়িয়ে নেয় হাক্কানি নেটওয়ার্ক।

জানা গেছে, আফগানিস্তানের গ্রীন জোনে অবস্থিত শেরপুরের যে বাড়িটিতে আল-কায়েদা প্রধান অবস্থান করছিলেন, আগে সেখানে পশ্চিমা সমর্থিত সরকারের এমপি-মন্ত্রীরা থাকতেন।

গত বছরের মধ্য আগস্টে তালেবান যখন আফগানিস্তানের ক্ষমতা গ্রহণ করে তখন দেশ ছাড়তে বাধ্য হন দেশটির সাংসদ ও মন্ত্রীরা। ফলে তাদের রেখে যাওয়া বাড়িগুলোর দখল নেয় তালেবান। আর তারই একটিতে বসবাস করছিলেন আল কায়েদা প্রধান আয়মান আল জাওয়াহিরি।

এ সম্পর্কিত খবর

No stories found.
kalbela.com