দাঁতে হলুদ দাগ ও শিরশির অনুভূতিসহ বিভিন্ন সমস্যা ও করণীয়

দাঁতে হলুদ দাগ ও শিরশির অনুভূতিসহ বিভিন্ন সমস্যা ও করণীয়
প্রতীকী ছবি

সাদা ও ঝলমলে দাঁত একজন মানুষের ব্যক্তিত্বকে ফুটিয়ে তোলে। কিন্তু দাঁতের যত্নের অভাবে অনেক সময় বিভিন্ন রকম সমস্যা দেখা যায়। যেমন দাঁত হলুদ হয়ে যাওয়া, শিরশির করা ও দাঁতে পোকা হওয়া ইত্যাদি। আজ আমরা এসব সমস্যা ও সেগুলো থেকে পরিত্রাণের উপায় জানব বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ওরাল অ্যান্ড ম্যাক্সিলোফেসিয়াল সার্জারি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক এবং মুখমণ্ডল, চোঁয়াল ও দন্ত রোগ বিশেষজ্ঞ ডা. রুমন বনিকের কাছ থেকে।

কী কী কারণে দাঁত হলুদ হয়ে যেতে পারে?

ডা. রুমন বনিক : দীর্ঘ দিন ফ্লুরাইড জাতীয় টুথপেস্ট দিয়ে ব্রাশ করলে দাঁত হলুদ হয়ে যেতে পারে। বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে দাঁতের অ্য্যানামেলস স্ট্রাকচার সম্পূর্ণ ম্যাচিউরড হতে থাকে এবং দাঁতের ট্রান্সলুসেন্সি লস করে। ফলে দাঁত হলুদ দেখা যেতে পারে। এছাড়া যারা অতিরিক্ত চা, কফি পান করেন যারা পান-সুপারি খান এবং ধুমপান করেন তাদেরও দাঁতের উপরে বিভিন্ন ধরনের কালো এবং লাল প্রলেপ পড়ে। এজন্য দাঁত হলুদ দেখায়।

দাঁতের হলুদ দাগ কীভাবে দূর করা যাবে?

ডা. রুমন বনিক : দাঁত হলুদ দেখালে স্কেলিং বা প্রফেশনালি ক্লিনিং করে সাদা করা যায়। পান-সুপারি, সিগারেট, গুল ও জর্দ্দা এগুলো পরিহার করলে দাঁতে হলুদ দাগ পড়ার প্রবণতা কমে যাবে। এছাড়া অতিরিক্ত চা, কফি পানের অভ্যাস ত্যাগ করলে হলুদ দাগ পড়ার সম্ভাবনা কম থাকে।

দাঁতে শিরশির অনুভূত হয় কেন?

ডা. রুমন বনিক : দাঁত শিরশির করার অনেকগুলো কারণ রযেছে। এগুলোর মধ্যে অন্যতম হলো- যদি সঠিকভাবে টুথ ব্রাশ না করা হয় তাহলে দাঁতের গোড়াতে ঠিক মাড়ির উপরে একটি নির্দিষ্ট অংশ কেটে যেতে পারে। কেটে যাওযার ফলে অ্যানামেল ক্ষয় হয়ে যায়। তখন খুব স্বভাবতই বাইরের তাপমাত্রা পরিবর্তনের সাথে সাথে মিষ্টি জাতীয় খাবারগুলো দাঁতের মজ্জার উপর একটি ইমপ্রেশন তৈরি করে। এর ফলে দাঁতের শিরশির অনুভূত হয়। পাশাপাশি দাঁতের গোড়াতে যদি পাথর জমে তাতে শেকড় বের হয়ে যায়। সেই শেকড় যখন বাইরের পরিবেশের সঙ্গে কোনো খাবারের সংস্পর্শে আসে তখন দাঁত শিরশির করতে পারে।

দাঁতের শিরশির রোধে করণীয় কী?

ডা. রুমন বনিক : রাতে ঘুমানোর আগে এবং সকালে নাশতা করার পরে নিয়মিত দাঁত ব্রাশ করতে হবে যাতে দাঁতের ফাঁকে কোনো জীবাণু তৈরি হতে না পারে। দাঁত ব্রাশ করার জন্য সেনসিটিভিটি রোধ করে এমন টুথপেস্ট ব্যবহার করতে হবে। জোরে দাঁত ব্রাশ করা যাবে না। কারণ জোরে ব্রাশ করলে দাঁতের শিরশির ভাব আরও বেড়ে যাবে। হালকা কোমল ব্রাশ দিয়ে ধীরে ধীরে দাঁত ব্রাশ করতে হবে।

দাঁতে পোকা বলে কি কিছু আছে?

ডা. রুমন বনিক : আমরা অনেক সময়ই বলে থাকি যে, দাঁতে পোকা হয়েছে। গ্রামাঞ্চলে এটি বলার প্রবণতা বেশি দেখা যায়। আসলে দাঁতে পোকা বলে কিছু নেই। যদি কেউ বলে যে, খালি চোখে দাঁতে পোকা দেখা গেছে তাহলে সেটি সত্য নয়। কারণ দাঁতে যেটি রয়েছে সেটিকে চিকিৎসকরা ব্যাকটেরিয়া বলে থাকেন। আর ব্যাকটেরিয়া খালি চোখে দেখা যায় না। মাইক্রোস্কোপ দিয়ে দেখতে হয়।

এ সম্পর্কিত খবর

No stories found.
kalbela.com