বান্দরবানে গ্রেপ্তার দুই জঙ্গি কারাগারে

কারাগারে নেওয়া হচ্ছে দুই জঙ্গিকে।
কারাগারে নেওয়া হচ্ছে দুই জঙ্গিকে।ছবি : কালবেলা

জঙ্গি সংগঠন জামায়াতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়ার সামরিক শাখার শীর্ষ দুই সদস্যকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। আজ মঙ্গলবার দুপুরে তাদের বান্দরবানের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করা হয়। জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সৈয়দা সুরাইয়া আক্তারের আদালত আসামিদের জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- সিলেট জেলার কোতোয়ালি থানার মোহম্মদপুর গ্রামের মৃত আব্দুস সাত্তারের ছেলে মাসকুর রহমান (৪৪) ওরফে রণবীর এবং মাদারীপুর জেলার রাজৈর থানার সরমঙ্গল গ্রামের মৃত আব্দুর রউফ মৃধার ছেলে মো. আবুল বাসার মৃধা (৪৪) ওরফে কয়। তারা দুজনই জঙ্গি সংগঠন জামায়াতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়ার শীর্ষ সামরিক শাখার সদস্য।

বান্দরবান আদালত পুলিশ পরিদর্শক (জিআরও) আব্দুল মজিদ জানান, সন্ত্রাসবিরোধী আইনের মামলায় দুই জনকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠানো হয়। পরে আদালতের ম্যাজিস্ট্রেট আসামিদের জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন। আদালতে তোলার পর দুই জঙ্গিকে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। তাদের পরবর্তী মামলার ধার্য তারিখ ১৬ ফেব্রুয়ারি নির্ধারণ করেছেন আদালত।

এদিকে মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, সোমবার রাতে কক্সবাজার জেলার উখিয়া থানা ও বান্দরবান জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার পাহাড়ে জঙ্গি ও সন্ত্রাসীরা অবস্থান করছে। এমন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১৫ সহ পুলিশ ওইসব এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে। অভিযানে দুপক্ষের মধ্যে গুলিবিনিময় হয়। পরে নাইক্ষ্যংছড়ি থানাধীন ঘুমধুম ইউনিয়নের পাহাড়পাড়া সাকিনের ইয়াহিয়া গার্ডেনে এলাকার একাশিয়া বাগান থেকে দুজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ । অভিযানের উপস্থিতি টের পেয়ে ৪ থেকে ৫ জন সন্ত্রাসী পালিয়ে যায়।

এদিকে এজাহারে আরও উল্লেখ করা হয়, জিজ্ঞাসাবাদে মাসকুর রহমান জামায়াতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়ার এর শূরা সদস্য ও সামরিক শাখার প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছে বলে স্বীকার করেছেন। এ ছাড়াও নিজেদের আবারও সংগঠিত করার জন্য তারা কক্সবাজার জেলার উখিয়া থানাধীন রোহিঙ্গা ক্যাম্পের আশপাশে দীর্ঘদিন যাবত অবস্থান করছিল বলে জানানো হয়।

এজাহারে উল্লেখ করা হয়, বাংলাদেশের নিষিদ্ধ সংগঠন জেএমবি, আনসার আল ইসলাম, হুজি এর বিভিন্ন পর্যায়ের কতিপয় নেতা ও কর্মীরা একত্র হয়ে বাংলাদেশে জামায়াতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়া প্রতিষ্ঠিত করেছে।

নাইক্ষ্যংছড়ি থানা পুলিশ জানায়, বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমধুম ইউনিয়নের ইয়াহিয়া গার্ডেন থেকে একটি দোনলা বন্দুক, শটগানের ১২টি খালি কার্তুজ, একটি দেশি পিস্তল, পিস্তলের তিনটি খালি ম্যাগাজিন, ৯ এমএমএম গুলি ১১১ রাউন্ড, একটি খালি খোসা, নগদ ২ লাখ ৫৭ হাজার ২৬০ টাকা এবং একটি মোবাইল জব্দ করে। পরে তাদের বিরুদ্ধে নাইক্ষ্যংছড়ি থানায় মামলা করা হয়।

জানা যায়, বান্দরবানে বিচ্ছিন্নতাবাদী সশস্ত্র সন্ত্রাসী সংগঠন কুকি চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট (কেএনএফ) এর প্রশিক্ষণ আস্তানায় নতুন জঙ্গি সংগঠন ‘জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্কীয়ার বেশ কয়েকজন সদস্য অবস্থান করে সামরিক প্রশিক্ষণ নিচ্ছে, এমন সংবাদে গত অক্টোবর মাস থেকে জেলার দুর্গম পাহাড়ে অভিযান পরিচালনা করছে র‌্যাব। আর সর্বশেষ ১১ জানুয়ারি অভিযান চালিয়ে থানচি ও রুমা উপজেলা থেকে ‘জামায়াতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্কীয়ার ৫ জঙ্গি সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়।

এ সম্পর্কিত খবর

No stories found.
logo
kalbela.com