নব সভ্যতা

সৈয়দ ইকবাল এর ছবি

বিশ্ব এখন এগিয়ে চলেছে, এগিয়ে চলেছি আমরা
ক্রমেই গাঢ়তর হচ্ছে আমাদের গায়ের চামড়া।
এগিয়ে চলেছি এক নবতর সভ্যতার দিকে
যে সভ্যতার জোয়ার উঠেছে আজ চারদিকে।

যে সভ্যতা দেয় সার্বভৌমত্বের প্রশিক্ষণ
পরের ভূমিতে চালিয়ে লুটেরার আগ্রাসন।
মানবাধিকার হয় পুষ্ট
নিষ্পাপ মানুষের রক্তে তাজা-তুষ্ট।
মানুষ শিকার হয় জায়িজ
পাখি কিংবা শিয়াল শিকার করে না-জায়িজ।

যে সভ্যতার বিকাশ ঘটে উছলে দিয়ে
নারীর নগ্নতা প্রদর্শনের দূরন্ত উচ্ছ্বাস
‘নাস্তিক কিংবা এইথিস’ আত্মপরিচয়ে
বাক-স্বাধীনতা প্রকাশের উল্লাস।

যে সভ্যতা গণতন্ত্রকে করে মজবুত
চড়ে ধনতন্ত্র, দলতন্ত্র আর পরিবারতন্ত্রের ভূত।
সমাজতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করে, গড়ে পুঁজিতন্ত্রের ভিত্
অর্থনৈতিক মন্দা আর ছা-পোষাদের করে চাকরিচ্যুত।

যে সভ্যতা ‘ছোট হয়ে আসছে পৃথিবী’ - স্লোগানে
আওয়াজ তুলে- ‘একে অন্যের আপন’;
অথচ ধ্বংস করে মমত্ববোধ
রচে পরষ্পরের বিভাজন।

যে সভ্যতা সাড়ম্বরে করে ব্যক্তিপূঁজা আর এওয়ার্ড-প্রদান
নিজের ঢোল নিজে পিটান;
হিংসা, রেষারেষি আর দুঃশাসন
যুদ্ধ-বিগ্রহ খেলা আর অন্যের সমস্যায় মুরব্বীর উল্লম্ফন।

তাহলে কি-
এগিয়ে যাচ্ছি না আমরা ভয়াবহ এক সভ্যতা পানে
‘আইয়ামি-জাহিলিয়া’র চরম অসভ্যতা যেখানে হার মানে?

ভোট: 
Average: 10 (1 vote)